১০, এপ্রিল, ২০২০, শুক্রবার

৫ টাকার কয়েন ফেললেই পাওয়া যাবে একটি ন্যাপকিন

প্রতিদিনের কাগজ ডেস্ক:
প্রকাশিত: ৯:৫৫ অপরাহ্ন, ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২০, মঙ্গলবার


চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে (চবি) উদ্বোধন হলো ন্যাপকিন ভ্যান্ডিং মেশিনের। এখন থেকে ভেন্ডিং মেশিনগুলোতে ৫ টাকার কয়েন ফেললেই পাওয়া যাবে একটি ন্যাপকিন বা প্যাড।

মঙ্গলবার বিশ্ববিদ্যালয়ের বিবিএ অনুষদের অডিটোরিয়াম রুমে এই মেশিনের উদ্বোধন করা হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন মার্কেটিং বিভাগের সভাপতি ড. মোহাম্মদ জাভেদ হোসেন।
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পর দেশে দ্বিতীয় হিসেবে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে উদ্বোধন হলো এই মেশিনের। এতে আর্থিকভাবে সহযোগিতা করে বহুজাতিক কোম্পানি ‘লাইফ গুড’ (এলজি)।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদের ডিন সালামত ভূইয়া, বিশেষ অতিথি হিসেবে ছিলেন এলজি গ্রুপের ম্যানেজিং ডিরেক্টর ডিকে সনি, মার্কেটিং বিভাগের প্রফেসর ড. জাভেদ হোসেন, ম্যানেজমেন্ট বিভাগের সভাপতি ড. সাহিদুর রহমান, মার্কেটিং বিভাগের সভাপতি ড. সজীব কুমার ঘোষ সহ বিভিন্নজন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে অধ্যাপক এসএম সালামাত উল্যা ভূঁইয়া বলেন, অসাধারণ এ উদ্যোগের মধ্য দিয়ে ছাত্রীদের স্বাস্থ্য সুরক্ষায় চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে একটি দৃষ্টান্ত স্থাপন হবে। উন্নত দেশগুলোর মতো আমাদের দেশে নারীদের স্বাস্থ্যের বিষয়টি মাথায় রেখে এ ধরনের পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয় না। তাই এ ধরনের উদ্যোগকে স্বাগত জানাই।

এ সময় বক্তারা বলেন, নেপকিন শুধু একটি পণ্য নয়, একটি সামাজিক প্রথার বিরুদ্ধে আওয়াজ। আমাদের দেশ ও সমাজের জন্য অনন্য অর্জন। এই জন্য মূল উদ্যোক্তা ও আর্থিকভাবে সহযোগিতাকারী প্রতিষ্ঠান এলজিকে ধন্যবাদ জানান।

বক্তব্য রাখেন ম্যানেজমেন্ট বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক ড. সাহিদুর রহমান, হিউম্যান রিসোর্স ম্যানেজমেন্ট বিভাগের সভাপতি শাহনেওয়াজ মাহমুদ সোহেল, মার্কেটিং বিভাগের সাবেক সভাপতি অধ্যাপক ড. সজীব কুমার ঘোষ এবং এলজি কোম্পানির বাংলাদেশ অ্যাম্বাসেডর ডি. কে. সন।

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) ৬টি অনুষদ, ১টি ইনস্টিটিউট ও ১টি আবাসিক হলে ৮টি স্যানিটারি ন্যাপকিন ভেন্ডিং মেশিন স্থাপন করা হয়েছে। ভেন্ডিং মেশিনগুলোতে ৫ টাকার কয়েন ফেললেই পাওয়া যাবে একটি ন্যাপকিন বা প্যাড।

ক্যাম্পাসে ছাত্রীদের ভোগান্তি কমাতে এমন উদ্যোগ নিয়েছেন চবির মার্কেটিং বিভাগের এমবিএ’র শিক্ষার্থী তৌসিফ আহমেদ। এ সেবা পাবেন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রায় ১০ হাজার ছাত্রী।

ভেন্ডিং মেশিন স্থাপন করা হয়েছে ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদ, সমাজবিজ্ঞান অনুষদ, কলা ও মানববিদ্যা অনুষদ, বিজ্ঞান অনুষদ, জীববিজ্ঞান অনুষদ, আইন অনুষদ, বন ও পরিবেশবিদ্যা ইনস্টিটিউট এবং জননেত্রী শেখ হাসিনা হলের ছাত্রীদের কমনরুম গুলোতে।

২০১৯ সালে এলজি অ্যাম্বাসেডর প্রোগ্রামে এ প্রজেক্ট উপস্থাপন করেন চবির মার্কেটিং বিভাগের শিক্ষার্থী তৌসিফ আহমেদ। প্রজেক্টটি নির্বাচিত হওয়ার পর তা বাস্তবায়নে ৪ লাখ টাকার আর্থিক অনুদান দেয় এলজি কোম্পানি। ভারত থেকে আমদানি করা ভেন্ডিং মেশিনগুলো কয়েন অপারেটেড। মেশিনে ৫ টাকার কয়েন ফেললেই একটি ন্যাপকিন পাওয়া যাবে। ছাত্রীদের মাঝে ন্যাপকিন ব্যবহারের প্রবণতা বাড়াতে উদ্বোধনের প্রথম দুই সপ্তাহ বিনামূল্যে ভেন্ডিং মেশিন থেকে প্যাড সংগ্রহ করা যাবে।

মন্তব্য করুন

খবর অনুসন্ধান

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০  

সর্বশেষ নিউজ

আরো পড়ুন

Shares