মঙ্গলবার, ২৬ মে ২০২০, ৬:৫২ পিএম

ব্রিগেডিয়ার নাসির উদ্দিন শাসক হিসেবে কঠোর, মানুষ হিসেবে মানবিক- আলী ইউসুফ

উপসম্পাদকীয় :
প্রকাশিত: ১২:১১ অপরাহ্ন, ৩ ডিসেম্বর ২০১৯, মঙ্গলবার


উপসম্পাদকীয়

ব্রিগেডিয়ার নাসির উদ্দিন পরিচালক হিসেবে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের দায়িত্ব গ্রহনের পর থেকেই তাঁর এই জনপদে ব্যাপক আলোচিত। অনিয়ম, স্বেচ্ছাচারীতা,রোগিদের ওষুধ ও খাবার চুরি,কর্তব্যে অবহেলা, দালালদের দৌরাত্ম্যো যখন এই অঞ্চলের মানুষের নাভিশ্বাস চরম পর্যায়ে তখনই তিনি এলেন দূত হয়ে।

তিনি হাসপাতালের দায়িত্ব গ্রহনের পর থেকেই একে একে সকল অনিয়মের বিরুদ্ধে একরকম লড়াই করে চলছেন। এরই মধ্যে তিনি এই হাসপাতালকে এনে দিয়েছেন দেশ সেরার মর্যাদা। শুধু দেশেই নয় দক্ষিণ এশিয়ার সরকারি হাসপাতাল গুলোর জন্য মচিমহা এখন রোল মডেল।

সকল অনিয়ম দূর করতে ব্রিগেডিয়ার নাসির সাহেবকে কঠোর অবস্থানে থাকতে হয়েছে।
প্রথমেই এসব দুর্নীতির সঙ্গে যুক্ত কর্মকর্তা, কর্মচারী,ডাক্তার, নার্সদের চিহ্নিত করে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহনে তাঁর এ্যাকশন শুরু করেন। এখন এই হাসপাতালে রোগীর যতটুকু সম্ভব সুচিকিৎসা পাচ্ছে, বিনামূল্যে প্রায় সকল ওষুধই হাসপাতাল থেকেই দেয়া হচ্ছে যা আগে এ অঞ্চলের মানুষ স্বপ্নেও চিন্তা করেনি। খাবার পাচ্ছে।

কিন্তু তিনি কুলিয়ে উঠতে পারছেন না এসব অসাধু চক্রের সাথে। প্রতিনিয়ত ভিতরে বাহিরে সকল চক্রের সাথে তাঁকে সংগ্রাম করতে হচ্ছে।

এই সব করতে পারছেন তিনি ন্যায়ের পথে এবং অন্যায়ের বিরুদ্ধে সব সময় আপোষহীন এবং কঠোর থাকবার কারণে। তিনি একটি প্রতিষ্ঠানের শৃঙ্খলা ফেরাতে যতটুকু কঠোর হওয়া প্রয়োজন তিনি ততটুকুই কঠোর।

কঠোর এই মানুষটি ব্যাক্তি জীবনে খুবই মানবিক এবং দয়ালু। তিনি তাঁর আয়ের অনেকটা অংশই বিলিয়ে দেন মানব কল্যানে। নিরবে, নিভৃতে, আড়ালে তিনি বহু অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছেন। অসহায় ও ভাগ্য বঞ্চিত মানুষদের ভাগ্য ফেরাতে তিনি নিরলসভাবে কাজ করেন নেপথ্যে থেকে।

এই ঘুনে ধরা সমাজ ব্যবস্থায় এখন সর্বত্র দরকার ব্রিগেডিয়ার নাসির সাহেবেরমত কঠোর এবং মানবিক মানুষ। যারা তাঁদের দায়িত্বকে পবিত্র আমানত হিসেবে গ্রহন করবেন।

নাসির সাহেবরা হয়ত আমাদের মাঝে যুগ যুগ থাকবেন না তবে তাঁদের কর্ম ও কর্মব্যবস্থাপনা জেগে থাকবে অনন্তকাল….

মন্তব্য করুন

খবর অনুসন্ধান

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১

সর্বশেষ নিউজ

আরো পড়ুন

Shares