১৪, নভেম্বর, ২০১৯, বৃহস্পতিবার

রিমান্ড শেষে কারাগারে রাজিব

স্টাফ রিপোর্টার::
প্রকাশিত: ২:৩৩ অপরাহ্ন, ১৪, নভেম্বর, ২০১৯, বৃহস্পতিবার

নিউজটি পড়া হয়েছে ০ বার
রিমান্ড শেষে কারাগারে রাজিব

অস্ত্র ও মাদক আইনের মামলায় ১৪ দিনের রিমান্ড শেষে বহিষ্কৃত যুবলীগ নেতা ও ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের কাউন্সিলর তারেকুজ্জামান রাজিবকে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত। আজ সোমবার রিমান্ড শেষে রাজিবকে আদালতে হাজির করে কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পুলিশের গোয়েন্দা শাখার (ডিবি) পরিদর্শক ফজলুর রহমান।

আদালতে শুনানিকালে আসামি রাজিবের পক্ষে অ্যাডভোকেট মেজবাহ উদ্দিনসহ কয়েকজন আইনজীবী জামিন আবেদন করেন। রাষ্ট্রপক্ষে ভাটারা থানার সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা উপপরিদর্শক (এসআই) লিয়াকত আলী জামিনের বিরোধীতা করেন।

উভয়পক্ষের শুনানি শেষে ঢাকা মহানগর হাকিম আবু সাঈদ অস্ত্র মামলায় এবং মহানগর হাকিম মোহাম্মদ দিদার হোসাইন মাদক মামলায় জামিন আবেদন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

গত ১৯ অক্টোবর রাতে রাজধানীর বসুন্ধরা আবাসিক এলাকার একটি বাড়ি থেকে রাজিবকে আগ্নেয়াস্ত্র, মাদক ও নগদ টাকাসহ গ্রেপ্তার করে র‌্যাব। ওই ঘটনায় র‌্যাব-১ এর ডিএডি মিজানুর রহমান ভাটারা থানায় অস্ত্র ও মাদক আইনে দুটি মামলা দায়ের করেন। ওই মামলায় ২০ দিনের রিমান্ড আবেদন করে গত ২১ অক্টোবর রাত সোয়া ১১টায় তাকে ঢাকা সিএমএম আদালতে হাজির করে পুলিশ। রাত ১২টা ১০ মিনিটে শুনানি শেষে প্রত্যেক মামলায় সাত দিন করে ১৪ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত।

রাজীব ২০১৫ সালে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে কাউন্সিলর নির্বাচিত হন। তিনি মোহাম্মদপুর থানা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক ছিলেন। এক মুক্তিযোদ্ধাকে লাঞ্ছিত করার অভিযোগে তাকে সংগঠন থেকে বহিষ্কার করা হয়েছিল। পরবর্তী সময়ে তিনি আবার ঢাকা মহানগর উত্তর যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হন। তিনি নিম্নবিত্ত পরিবারের সন্তান ছিলেন। তার বাবা রডের মিস্ত্রি হিসেবে কাজ করতেন। তার চাচা ছিলেন রাজমিস্ত্রি। কাউন্সিলর নির্বাচিত হওয়ার পর থেকেই রাজীবের পরিবর্তন শুরু হয়।

মন্তব্য করুন

খবর অনুসন্ধান

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০  

সর্বশেষ নিউজ

আরো পড়ুন

Shares