১৭, আগস্ট, ২০১৯, শনিবার | | ১৫ জ্বিলহজ্জ ১৪৪০


কাঁদছে বাংলাদেশ ---রুখসার রহমান

রিপোর্টার নামঃ প্রতিদিনের কাগজ ডেস্ক | আপডেট: ৩১ জুলাই ২০১৯, ০৫:৫০ পিএম

কাঁদছে বাংলাদেশ ---রুখসার রহমান
কাঁদছে বাংলাদেশ ---রুখসার রহমান

 চারিদিকে শুধু হাহাকার

     আর যেদিক তাকাই পানি,

সব হারিয়েও নিঃস্ব যে তারা

     আমরা কতটুকু বা জানি।

জীবন বাঁচাতে একমুঠো ভাত  

     জ্বলে পুড়ে পেট শেষ,

বানের জলে ভাসছে ওরা 

     কাঁদছে বাংলাদেশ। 

ভেসেছে ফসল, ভেসেছে যে ঘর, 

     আহ্ াকি যে ভয়ংকর। 

কাঁদতে কাঁদতে, কাটছে যে রাত

      হচ্ছেনা যে পার দিন------

যার যার মতো, যেভাবেই থাকি 

      একটু ওদের খবর নিন।

কাঁদছে শিশু,দিশেহারা মা

      খাবার খুঁজে না পায়,

আসছে খাবার, শুনছে খবর 

      তাকিয়ে পথের পানে চায়। 

বানের পানিতে আনছে বয়ে

      মহামারী কত রোগ, 

বৃদ্ধ শিশু হাজারো মানুষ 

      পাচ্ছে কতনা ভোগ।

বড় আসা নিয়ে তাকিয়ে ওরা

প্রতিদিন চেয়ে থাকে,

      আমরা যানিনা কখন আল্লাহ

কাকে যে কেমন রাখে।

    এই সুযোগে, হচ্ছে যে চুরি 

বড় বড় অংকের ত্রান,

    যদি লোভটা তাদের একটু কমায়

বেঁচে যায় কতশত প্রাণ।

     কত কষ্টে ঘাম ঝরিয়ে

বুনেছিল ক্ষেতে ধান,

     সব হারিয়েও নিঃস্ব যে আজ

বাকি শুধু আছে প্রাণ। 

     ঋণের টাকায় কেনা গরুটিও

ভাসলো ভানের টানে,

     হারানোর শোকে জলভরা চোখে

ব্যাথার মন...না মানে।

     আমরা যদি ঘুমিয়ে থাকি

কখনো হবেনা ভোর,

    আসুন, মানবতাটা ফিরিয়ে আনি 

ভাঙ্গাই ভুলের ঘোর।

কাঁদছে বাংলাদেশ ---রুখসার রহমান

প্রতিবেদক নাম: প্রতিদিনের কাগজ ডেস্ক ,

প্রকাশের সময়ঃ ৩১ জুলাই ২০১৯, ০৫:৫০ পিএম

 চারিদিকে শুধু হাহাকার

     আর যেদিক তাকাই পানি,

সব হারিয়েও নিঃস্ব যে তারা

     আমরা কতটুকু বা জানি।

জীবন বাঁচাতে একমুঠো ভাত  

     জ্বলে পুড়ে পেট শেষ,

বানের জলে ভাসছে ওরা 

     কাঁদছে বাংলাদেশ। 

ভেসেছে ফসল, ভেসেছে যে ঘর, 

     আহ্ াকি যে ভয়ংকর। 

কাঁদতে কাঁদতে, কাটছে যে রাত

      হচ্ছেনা যে পার দিন------

যার যার মতো, যেভাবেই থাকি 

      একটু ওদের খবর নিন।

কাঁদছে শিশু,দিশেহারা মা

      খাবার খুঁজে না পায়,

আসছে খাবার, শুনছে খবর 

      তাকিয়ে পথের পানে চায়। 

বানের পানিতে আনছে বয়ে

      মহামারী কত রোগ, 

বৃদ্ধ শিশু হাজারো মানুষ 

      পাচ্ছে কতনা ভোগ।

বড় আসা নিয়ে তাকিয়ে ওরা

প্রতিদিন চেয়ে থাকে,

      আমরা যানিনা কখন আল্লাহ

কাকে যে কেমন রাখে।

    এই সুযোগে, হচ্ছে যে চুরি 

বড় বড় অংকের ত্রান,

    যদি লোভটা তাদের একটু কমায়

বেঁচে যায় কতশত প্রাণ।

     কত কষ্টে ঘাম ঝরিয়ে

বুনেছিল ক্ষেতে ধান,

     সব হারিয়েও নিঃস্ব যে আজ

বাকি শুধু আছে প্রাণ। 

     ঋণের টাকায় কেনা গরুটিও

ভাসলো ভানের টানে,

     হারানোর শোকে জলভরা চোখে

ব্যাথার মন...না মানে।

     আমরা যদি ঘুমিয়ে থাকি

কখনো হবেনা ভোর,

    আসুন, মানবতাটা ফিরিয়ে আনি 

ভাঙ্গাই ভুলের ঘোর।